বন্দী


দাও খুলে দাও, সখী, ওই বাহুপাশ।

চুম্বনমদিরা আর করায়ো না পান।

কুসুমের কারাগারে রুদ্ধ এ বাতাস,

ছেড়ে দাও ছেড়ে দাও বদ্ধ এ পরান।

কোথায় উষার আলো, কোথায় আকাশ!

এ চির পূর্ণিমারাত্রি হোক অবসান।

আমারে ঢেকেছে তব মুক্ত কেশপাশ,

তোমার মাঝারে আমি নাহি দেখি ত্রাণ!

আকুল অঙ্গুলিগুলি করি কোলাকুলি

গাঁথিছে সর্বাঙ্গে মোর পরশের ফাঁদ।

ঘুমঘোরে শূন্য-পানে দেখি মুখ তুলি

শুধু অবিশ্রামহাসি একখানি চাঁদ।

স্বাধীন করিয়া দাও, বেঁধো না আমায়--

স্বাধীন হৃদয়খানি দিব তার পায়।

 

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •