স্মৃতি


ওই দেহ-পানে চেয়ে পড়ে মোর মনে

যেন কত শত পূর্বজনমের স্মৃতি।

সহস্র হারানো সুখ আছে ও নয়নে,

জন্ম-জন্মান্তের যেন বসন্তের গীতি।

যেন গো আমারি তুমি আত্মবিস্মরণ,

অনন্ত কালের মোর সুখ দুঃখ শোক,

কত নব জগতের কুসুমকানন,

কত নব আকাশের চাঁদের আলোক।

কত দিবসের তুমি বিরহের ব্যথা,

কত রজনীর তুমি প্রণয়ের লাজ,

সেই হাসি সেই অশ্রু সেই সব কথা

মধুর মুরতি ধরি দেখা দিল আজ।

তোমার মুখেতে চেয়ে তাই নিশিদিন

জীবন সুদূরে যেন হতেছে বিলীন।

 

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •