৩৬


কোথা হতে আসিয়াছি নাহি পড়ে মনে

অগণ্য যাত্রীর সাথে তীর্থদরশনে

এই বসুন্ধরাতলে; লাগিয়াছে তরী

নীলাকাশ সমুদ্রের ঘাটের উপরি।

শুনা যায় চারি দিকে দিবসরজনী

বাজিতেছে বিরাট সংসার-শঙ্খধ্বনি

লক্ষ লক্ষ জীবন-ফুৎকারে। এত বেলা

যাত্রী নরনারী-সাথে করিয়াছি মেলা

পুরীপ্রান্তে পান্থশালা-'পরে। স্নানে পানে

অপরাহ্ন হয়ে এল গল্পে হাসিগানে--

এখন মন্দিরে তব এসেছি, হে নাথ,

নির্জনে চরণতলে করি প্রণিপাত

এ জন্মের পূজা সমাপিব। তার পর

নবতীর্থে যেতে হবে হে বসুধেশ্বর।

 

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •