পাঁচদিন ভাত নেই, দুধ একরত্তি--

  জ্বর গেল, যায় না যে তবু তার পথ্যি।

সেই চলে জলসাবু,     সেই ডাক্তারবাবু,

  কাঁচা কুলে আমড়ায় তেমনি আপত্তি।

 

  ইস্কুলে যাওয়া নেই সেইটে যা মঙ্গল--

  পথ খুঁজে ঘুরিনেকো গণিতের জঙ্গল।

কিন্তু যে বুক ফাটে      দূর থেকে দেখি মাঠে

  ফুটবল-ম্যাচে জমে ছেলেদের দঙ্গল।

 

   কিনুরাম পণ্ডিত, মনে পড়ে, টাক তার--

   সমান ভীষণ জানি চুনিলাল ডাক্তার।

খুলে ওষুধের ছিপি     হেসে আসে টিপিটিপি--

   দাঁতের পাটিতে দেখি, দুটো দাঁত ফাঁক তার।

 

   জ্বরে বাঁধে ডাক্তারে, পালাবার পথ নেই;

   প্রাণ করে হাঁসফাঁস যত থাকি যত্নেই।

জ্বর গেলে মাস্টারে     গিঁঠ দেয় ফাঁসটারে--

   আমারে ফেলেছে সেরে এই দুটি রত্নেই।

 

 

  উদয়ন, শান্তিনিকেতন, ১৫। ৯। ৩৮