২৬    


এবারে ফাল্গুনের দিনে সিন্ধুতীরের কুঞ্জবীথিকায়

          এই যে আমার জীবন-লতিকায়

ফুটল কেবল শিউরে-ওঠা নতুন পাতা যত

              রক্তবরন হৃদয়ব্যথার মতো;

দখিন হাওয়া ক্ষণে ক্ষণে দিল কেবল দোল,

              উঠল কেবল মর্মর কল্লোল।

          এবার শুধু গানের মৃদু গুঞ্জনে

বেলা আমার ফুরিয়ে গেল কুঞ্জবনের প্রাঙ্গণে।

 

আবার যেদিন আসবে আমার রূপের আগুন ফাল্গুনদিনের কাল

          দখিন হাওয়ায় উড়িয়ে রঙিন পাল,

     সেবারে এই সিন্ধুতীরের কুঞ্জবীথিকায়

              যেন আমার জীবন-লতিকায়

                      ফোটে প্রেমের সোনার বরন ফুল

                            হয় যেন আকুল

              নবীন রবির আলোকটি তাই বনের প্রাঙ্গণে

                       আনন্দ মোর জনম নিয়ে

                            তালি দিয়ে তালি দিয়ে

                       নাচে যেন গানের গুঞ্জনে।

 

 

  পদ্মা, ২২ মাঘ, ১৩২১