জয়ী    


রূপহীন, বর্ণহীন, চিরস্তব্ধ, নাই শব্দ সুর,

মহাতৃষ্ণা মরুতলে মেলিয়াছে আসন মৃত্যুর;

          সে মহানৈঃশব্দ-মাঝে বেজে ওঠে মানবের বাণী

                   "বাধা নাহি মানি'।

আস্ফালিছে লক্ষ লোল ফেনজিহ্বা নিষ্ঠুর নীলিমা--

তরঙ্গতাণ্ডবী মৃত্যু, কোথা তার নাহি হেরি সীমা;

          সে রুদ্র সমুদ্রতটে ধ্বনিতেছে মানবের বাণী

                   "বাধা নাহি মানি'।

আদিতম যুগ হতে অন্তহীন অন্ধকার পথে

আবর্তিছে বহ্নিচক্র কোটি কোটি নক্ষত্রের রথে;

          দুর্গম রহস্য ভেদি সেথা উঠে মানবের বাণী

                   "বাধা নাহি মানি'।

          অণুতম অণুকণা আকাশে আকাশে নিত্যকাল

বর্ষিয়া বিদ্যুৎবিন্দু রচিছে রূপের ইন্দ্রজাল;

          নিরুদ্ধ প্রবেশদ্বারে উঠে সেথা মানবের বাণী

                   "বাধা নাহি মানি'।

চিত্তের গহনে যেথা দুরন্ত কামনা লোভ ক্রোধ

আত্মঘাতী মত্ততায় করিছে মুক্তির দ্বার রোধ

          অন্ধতার অন্ধকারে উঠে সেথা মানবের বাণী

                   "বাধা নাহি মানি'।